দ্রব্যমূল্যের উর্ধ্বগতির সাথে জনগণের নিরব যুদ্ধ চলছে – ব্যারিস্টার তাসমিয়া প্রধান

জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টি-জাগপা’র সভাপতি ব্যারিস্টার তাসমিয়া প্রধান বলেছেন, স্বাধীনতার ৪০ বছর পর গত ১০ বছরে দেশের জনগণ গণতন্ত্র ও ভোটাধিকার হারিয়েছে। গত ৫ বছর ধরে সাধারণ মানুষ চাল-ডাল, তেল-পানি, গ্যাস-বিদ্যুৎ সহ দ্রব্যমূল্যের সাথে নিরব যুদ্ধ চালিয়ে যাচ্ছে। কৃষকরা কৃষি পণ্যের ভূর্তকি দিতে গিয়ে আজ নিঃস্ব। শিক্ষিত বেকার যুবকদের কর্মসংস্থান না থাকায় ঘরে ঘরে বড় সংকট দেখা দিয়েছে। এসব পরিস্থিতির জন্য দায় দেশের আমলা ও শাসকগোষ্ঠীর বস্তা বস্তা দুর্নীতি।

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের মন্ত্রী-এমপি ও নেতাদের দুর্নীতি আবারও জেগে উঠায় নিত্যপণ্যের দাম লাগামহীন ভাবে বাড়তে শুরু করেছে। তাদের দলীয় সুবিধার জন্য বাজারে বাজারে এখন সিন্ডিকেট বসানো হয়েছে।

তিনি সরকারকে অবিলম্বে দ্রব্যমূল্যের উপর নিয়ন্ত্রিত সিন্ডিকেট বন্ধের আহ্বান জানিয়ে বলেন, সকল পণ্যের উপর বাড়তি মূল্য প্রত্যাহার করতে হবে। বাজারে ও খুচরা দোকানে ভ্রাম্যমাণ অভিযান শুরু করুন। দেশের মানুষের মৌলিক অধিকার ফিরিয়ে দিন।

তিনি আরো বলেন, প্রতিহিংসার রাজনীতি করতে গিয়ে আওয়ামী লীগ আজ দেশের জন্য বড় হুমকি হয়ে দাঁড়িয়েছে। ওরা ক্ষমতায় বসে জনগণকে মিথ্যা প্রতিশ্রুতি দিয়ে আবার জনগণের অধিকার কেড়ে নেওয়ার পাঁয়তারা করছে। তবে রাজনীতিবিদদের মনে রাখা ভাল প্রতিহিংসা এবং লোভ-লালসার রাজনীতি দেশের জন্য একটি মরণ ফাঁদ। আসুন আমরা জুলুমবাজ সরকারের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ সংগ্রাম গড়ে তুলি। দেশ বাঁচাই -মানুষ বাঁচাই।

তিনি আজ শুক্রবার বিকাল সাড়ে ৩ টায় আসাদ গেট জিইউপি মিলনায়তনে “দ্রব্য মূল্যের লাগামহীন উর্ধ্বগতির” প্রতিবাদ যুব জাগপা আয়োজিত যুব সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

যুব জাগপা’র সভাপতি নজরুল ইসলাম বাবলু’র সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন জাগপা’র সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ইকবাল হোসেন, প্রেসিডিয়াম সদস্য আবু মোজাফফর মোঃ আনাছ, ভাইস চেয়ারম্যান ও রাজনৈতিক মুখপাত্র রাশেদ প্রধান, যুব জাগপা’র সহসভাপতি মাহিদুর রহমান বাবলা, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ আলী ফকির, ক্রীড়া সম্পাদক শ্রী জনি নন্দী, সহ প্রচার সম্পাদক আক্তার হোসেন প্রমূখ।